প্রতিরক্ষামন্ত্রী ডিফেন্স ইন্ডিয়া স্টার্টআপ চ্যালেঞ্জ ৫.০-এর সূচনা করেছেন

/
95055 views
24 mins read

প্রতিরক্ষা মন্ত্রী শ্রী রাজনাথ সিং আজ ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ইনোভেশন্স ফর ডিফেন্স এক্সেলেন্স – ডিফেন্স ইনোভেশন অর্গানাইজেশন (আইডেক্স – ডিআইও) পক্ষ থেকে পঞ্চম পর্বের ডিফেন্স ইন্ডিয়া স্টার্টআপ চ্যালেঞ্জ (ডিস্ক) উদ্বোধন করেছেন। এবারের ডিস্কে তিন সেনাবাহিনীর কাছ থেকে ১৩টি এবং প্রতিরক্ষা রাষ্ট্রায়াত্ব সংস্থাগুলির কাছ থেকে ২২টি চ্যালেঞ্জ পাওয়া গেছে। এই চ্যালেঞ্জগুলির মধ্যে রয়েছে সিচ্যুয়েশন্যাল অ্যাওয়ার্নেস, অগমেন্টেড রিয়ালিটি, কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা, এয়ার ক্রাফট ট্রেনার, নন-লেথল ডিভাইসেস, ফাইভ জি নেটওয়ার্ক, আন্ডার ওয়াটার ডোমেন অ্যাওয়ার্নেস, ডেটা ক্যাপচারিং প্রভৃতি। এই চ্যালেঞ্জগুলি অদূর ভবিষ্যতে সামরিক রণকৌশলের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেবে। তাই এবারের চ্যালেঞ্জে এই বিষয়গুলির ওপর গুরুত্ব দেওয়া হচ্ছে।
প্রতিরক্ষামন্ত্রী শ্রী সিং আইডেক্স – ডিআইও-এর প্রয়াসের প্রশংসা করে বলেছেন, ডিস্ক ৫.০ প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে স্বনির্ভরতা অর্জনের লক্ষ্যে আরও একটি বড় পদক্ষেপ। দেশ যখন আজাদি কা অমৃত মহোৎসব উদযাপন করছে, তখন প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে স্বনির্ভরতা অর্জনের লক্ষ্যে এরকম প্রয়াস অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ। কেবল তাই নয়, ডিস্ক ৫.০-র মত উদ্যোগ গ্রহণ করে প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে আত্মনির্ভরতা অর্জনের লক্ষ্যে সরকারের দৃঢ় অঙ্গিকারের প্রতিফলন ঘটে। তিনি আরও জানান, গত চারটি ডিফেন্স ইন্ডিয়া স্টার্টআপ চ্যালেঞ্জে ৪০টি প্রযুক্তিগত ক্ষেত্রের সঙ্গে যুক্ত ৮০টি স্টার্টআপ, ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্প সংস্থা ও ব্যক্তিগত উদ্ভাবক যোগ দিয়েছিলেন। তিনি আরও বলেন, এবারের চ্যালেঞ্জে যে সমস্ত আধুনিক ও ভবিষ্যৎমুখী চ্যালেঞ্জ সমাধানের অঙ্গিকার করা হয়েছে, তা থেকে দেশের তরুণ শিল্পোদ্যোগী ও উদ্ভাবকদের আস্থার প্রতিফলন ঘটে।
প্রতিরক্ষামন্ত্রী এক মজবুত, আধুনিক ও সুসজ্জিত সামরিক বাহিনী গড়ে তোলার প্রয়োজনীয়তার ওপর জোর দিয়ে বলেন, দ্রুত পরিবর্তনশীল ভূ-রাজনৈতিক এবং বিশ্বব্যাপী নিরাপত্তা ব্যবস্থার প্রেক্ষিতে সামরিক বাহিনীর সক্ষমতা সর্বোচ্চ পর্যায়ে নিয়ে যাওয়ার প্রয়োজনীয়তা দেখা দিয়েছে। এই লক্ষ্য পূরণে আইডেক্স গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করছে। তিনি বলেন, আইডেক্স এমন একটি মঞ্চ যেখানে সরকার, সামরিক বাহিনী, চিন্তনবিদ, শিল্পসংস্থা, স্টার্টআপ এবং উদ্ভাবকরা প্রতিরক্ষা তথা মহাকাশ ক্ষেত্রে পূর্ণ সম্ভাবনার বাস্তবায়ণে একযোগে কাজ করতে পারে।
ডিফেন্স ইন্ডিয়া স্টার্টআপ চ্যালেঞ্জ প্রসঙ্গে প্রতিরক্ষামন্ত্রী বলেন, এধরণের প্রয়াস দেশের যুব সমাজ ও শিল্পোদ্যোগীদের কাছে অনেক সুযোগ-সুবিধা এনে দেয়। পক্ষান্তরে প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে সৃজনশীলতা ও সক্ষমতার নতুন দিশার সূচনা হয়। তিনি জানান, আইডেক্স-এর মত উদ্যোগের পাশাপাশি প্রতিরক্ষা ক্ষেত্রে উদ্ভাবনের প্রসারে মন্ত্রক একাধিক উদ্যোগ নিয়েছে। এই লক্ষ্যে প্রতিরক্ষা সামগ্রী সংগ্রহের জন্য দেশীয় সাজ-সরঞ্জাম ক্রয় করতে ২০২১-২২ অর্থবর্ষে ১ হাজার কোটি টাকার সংস্থান করা হয়েছে। সেই সঙ্গে প্রতিরক্ষা ও মহাকাশ ক্ষেত্রে উদ্ভাবনমূলক কাজকর্মের প্রসার ঘটাতে আগামী ৫ বছরে ৩০০টির বেশি স্টার্টআপ-কে প্রায় ৫০০ কোটি টাকা সাহায্য করার জন্য তহবিল সংস্থান করা হচ্ছে।
অনুষ্ঠানে প্রতিরক্ষা উৎপাদন দপ্তরের সচিব শ্রী রাজ কুমার বলেন, উদ্ভাবন ও আত্মনির্ভরতা প্রকৃত পক্ষেই আইডেক্সের দুটি গুরুত্বপূর্ণ স্তম্ভ। তিনি আরও বলেন, বর্তমান যুদ্ধের গতি প্রকৃতি সম্পূর্ণ প্রযুক্তি নির্ভর। তাই সম্পূর্ণ দেশীয় প্রযুক্তিতে প্রতিরক্ষা সামগ্রী উৎপাদনে আত্মনির্ভরতা অর্জন করে আমদানি নির্ভরতা কমাতে স্টার্টআপ সংস্থাগুলির বড় ভূমিকা রয়েছে। ডিফেন্স ইন্ডিয়া স্টার্টআপ চ্যালেঞ্জ ৫.০-এর উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে ভার্চুয়াল পদ্ধতিতে চিফ অফ ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়াত, প্রতিরক্ষা সচিব ডঃ অজয় কুমার সহ মন্ত্রকের উচ্চপদস্থ আধিকারিকরা যোগ দেন। উল্লেখ করা যেতে পারে, প্রধানমন্ত্রী শ্রী নরেন্দ্র মোদী প্রতিরক্ষা ও মহাকাশ ক্ষেত্রে আত্মনির্ভরতা অর্জনের পাশাপাশি উদ্ভাবনমূলক কাজকর্মের প্রসারে ২০১৮-র এপ্রিলে আইডেক্স উদ্যোগের সূচনা করেছিলেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!
Don`t copy text!